মঙ্গলবার , জানুয়ারী ১৯ ২০২১
সদ্য সংবাদ

দেশেই স্মার্ট ফোন অ্যাপ করোনা পজিটিভের সংস্পর্শে ছিলেন কিনা জানাবে

কভিড-১৯ মহামারির বিস্তার রোধে সারাদেশের নাগরিকেদের জন্য  কন্ট্যাক্ট ট্রেসিং এর জন্য পরীক্ষামূলক স্মার্টফোন অ্যাপ চালু করেছে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ।

বৃহস্পতিবার তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক ভিডিও কনফারেন্সে  ‘করোনা ট্রেসার বিডি’ শীর্ষক অ্যাপটি উদ্বোধন করেন।তিনি করোনা ঝুঁকি নির্ণয়ের জন্য আনা কন্ট্যাক্ট ট্রেসিং অ্যাপ সবাইকে ডাউনলোড করে ব্যবহারের অনুরোধ জানিয়েছেন ।

করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির কাছাকাছি গেলে অ্যাপটি ব্যবহারকারীদের সতর্ক করবে। এজন্য আগে থেকেই  অ্যাপটি ডাউনলোড করে স্মার্টফোনের ব্লুটুথ ও লোকেশন অপশন চালু রাখতে হবে। অ্যাপটি ডেভেলপ করেছে দেশের শীর্ষস্থানীয় টেক স্টার্টআপ সহজ লিমিটেড।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে পলক বলেন, নিজের এবং পরিবারের সুরক্ষার জন্য স্মার্টফোনে করোনা ট্রেসার বিডি অ্যাপটি ব্যবহার করলে ঝুঁকি অনেক কমে যায়।

অ্যাপটি স্মার্টফোনে ব্যবহারের সময় আশেপাশে কারা করোনায় আক্রান্ত কিংবা করোনা আক্রান্তদের সংস্পর্শে গেলেন কিনা সেটাও জানা যাবে।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, এই সময়ে আমরা চাচ্ছি প্রযুক্তিগত সমাধান আনতে। ইতোমধ্যে আমরা প্রযুক্তিগত নানান সমাধান আনতে সক্ষম হয়েছি। করোনা ট্রেসার বিডি এতে যুক্ত সর্বশেষ প্রযুক্তিগত সমাধান।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অ্যাপটির ব্যবহার সম্পর্কে এক প্রেজেন্টেশন দেন সহজ ডটকমের প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক মালিহা কাদির।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, করোনা ট্রেসার বিডি অ্যাপটি ব্লুটুথ ও আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করে স্বয়ংক্রিয়ভাবে দু’জন ব্যবহারকারীর কাছাকাছি থাকার সময় এবং ব্যবহারকারীর অবস্থান সুরক্ষিতভাবে সংরক্ষণ করে রাখবে। যখনই অন্য কোনো অ্যাপ ব্যবহারকারী একটি নির্দিষ্ট দূরত্বের মধ্যে আসবে তখনই অ্যাপ দুটি নিজেদের মধ্যে ‘প্রয়োজনীয় তথ্য সুরক্ষিতভাবে আদান-প্রদান করবে। গুগল প্লে স্টোর থেকে ‘করোনা ট্রেসার বিডি’ অ্যাপটি ডাউনলোড করা যাবে অথবা সরাসরি স্মার্টফোন থেকে (https://play.google.com/store/apps/details?id=com.shohoz.tracer) ক্লিক করেও অ্যাপটি ডাউনলোড করা যাবে।

আইসিটি বিভাগের সিনিয়র সচিব এন এম জিয়াউল আলম এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন এটুআই প্রোগ্রামের পলিসি এডভাইজার আনীর চৌধুরী, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ডা.আবুল কালাম আজাদ, আইইডিসিআর এর পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা,  এটুআই  প্রকল্প পরিচালক ড. আবদুল মান্নান, এলআইসিটির প্রকল্পের আইটি-আইটিইএস পলিসি এডভাইজার সামি আহমেদ।  অ্যাপটি সম্পর্কে বিস্তারিত তুলে ধরেন সহজ লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মালিহা কাদির।

অনুষ্ঠানে আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন,  সরকার ইতোমধ্যে কৃষি, শিক্ষা, স্বাস্থ্য খাত এবং জরুরি খাদ্য সরবরাহে প্রযুক্তিভিত্তিক সমাধানের মাধ্যমে জীবনযাত্রা সচল রেখেছে। করোনা মহামারির বিস্তার রোধে করোনা ট্রেসার বিডি অ্যাপটি অন্যতম কার্যকর সমাধান হতে পারে।

সহজ এর প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা সম্পাদক মালিহা কাদির বলেন, নির্ধারিত সময়ের মধ্যে যে কোনো অ্যাপ ব্যবহারকারী কোভিড-১৯ পজেটিভ শনাক্ত হলে তার কাছাকাছি আসা অন্য অ্যাপ ব্যবহারকারীদের স্বয়ংক্রয়িভাবে সম্ভাব্য ঝুঁকি ও করণীয় সম্পর্কে জানানো হবে।

উল্লেখ্য, আইসিটি বিভাগের উদ্যোগে অ্যাপটি তৈরিতে কাজ করেছে স্বাস্থ্য অধদিপ্তর, আইইডিসিআর, এটুআই, এসডিএমজিএ এবং সহজ।

সম্পর্কিত ডেস্ক রিপোট

এছাড়াও চেক করুন

ঢাকা মেডিকেলের চারতলায় অগ্নিকাণ্ড সিগারেট থেকে

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আইসিইউর পাশে বৃহস্পিতবার (৭ জানুয়াির) অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। তবে আগুন ছড়িয়ে …

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।